Breaking News
Home / ताजा खबरें / ভোটের মুখে নদী বাঁধ ভেঙে ক্ষতিগ্রস্ত কয়েক হাজার পরিবার

ভোটের মুখে নদী বাঁধ ভেঙে ক্ষতিগ্রস্ত কয়েক হাজার পরিবার

বাসন্তী- ♦নদী বাঁধ ভেঙে প্লাবিত হলো এলাকা।নদী ভাঙ্গনের ফলে ফসলের ক্ষতির আশঙ্কা করছেন চাষীরা।শুক্রবার রাতে ঘটনাটি ঘটেছে বাসন্তীর সজনেতলা এলাকায়।এদিন হোগল নদীর প্রায় ১০০ মিটার নদী বাঁধ ভেঙে যায়।বাঁধ ভেঙে নদীর জল চাষের জমিতে ঢুকে পড়ে।খবর পেয়ে ব্লক প্রশাসন ও সেচ দফতর যৌথ উদ্যোগে দ্রুত নদী বাঁধ মেরামত করতে উদ্যোগী হয়। বাসন্তীর বিডিও সৌগত সাহা বলেন,নদীর বাঁধ ভেঙে কিছু জমিতে জল ঢুকে পড়েছে।আমরা দ্রুত উদ্যোগ নিয়ে বাঁধ মেরামতের কাজ শুরু করেছি।কিছু ফসলের ক্ষতির সম্ভাবনা আছে। আমরা পুরো বিষয়টি খতিয়ে দেখছি।


আগামী দুপুরে বাঁধ ভাঙ্গার পরও জল ঢোকা বন্ধ যায়নি রাত্রে । আবারও রাত্রে নদীর জল ঢুকে প্লাবিত গোটা গ্রাম । আর সেই গ্রামে বসবাস কয়েক হাজার পরিবার এবং বাঁধ ভাঙ্গা নদীর জলে ক্ষতি গ্রস্ত সেই সমস্ত পরিবার । যেখানে তাদের চাষের ধান ক্ষেত , পুকুরের মাছ , হাঁস মুরগী গরু ছাগল সহ ঘর বাড়ি । এভাবে হঠাৎ নদীর বাঁধ ভেঙ্গে যাওয়া ক্ষোভে ফুঁসছে এলাকাবাসী । একটা দিন ও রাত্রি কেটে যাওয়ায় এখনও সুরাহা কিছু হয়নি । নদী বাঁধ ভাঙ্গার কাজ খুব ধীরগতে হওয়ায় আরও বেশী ক্ষতির আশঙ্কা করছেন ক্ষতিগ্রস্ত গ্রামবাসী । প্রশাসন ও পঞ্চায়েতের ঢিলেঢালা মন ভাবের জন্যে আজ এত গুলো পরিবার অসহায় । যদি প্রশাসন এব্যপারে একটু আগে নজর দিতেন তাহলে এমন দুর্ঘটনার কবলে আমাদের পড়তে হত না । ভোট আসলে শুধুই  প্রতিশ্রুতি , আর ভোট চলে গেলেই যে কে সেই ।

এমনটাই দাবী গ্রামবাসীর । ভোটের মুখে এভাবে হঠাৎ নদী বাঁধ ভেঙ্গে যাওয়ায় গৃহহীন কয়েকশ পরিবার এবং জলে ভাসছে গোটা গ্রাম । তবে একটা প্রশ্নচিহ্ন রয়ে গেল , যে শুধুই  ভোট এলে উন্নয়ন শুরু হয় আর ভোট চলে গেলে উন্নয়নের কাজ সব শেষ হয়ে যায় । আর বর্তমান সরকারের সুন্দরবন উন্নয়নের প্রমাণ রেখে গেলেন প্রত্যন্ত সুন্দরবনের সজনেতলা গ্রামে । সেই সমস্ত গ্রামবাসীর মানুষজন আজও উন্নয়ন কথার মানে জানলো না ।

About Mohan Bhowmik

Check Also

फांसी के फंदे पर झूली युवती

बाराबंकी/लखनऊ, 20 अप्रैल (आरएनआई) – शुक्रवार सुबह दस बजे बड्डूपुर मे एक युवती की संदिग्ध …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *